শাবিতে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে বন্দুকযুদ্ধে ১জন নিহত: প্রক্টরসহ ৫ জন গুলিবিদ্ধ

by News Room

সিলেটের খবর ডেস্ক: ক্যাম্পাসে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (শাবিপ্রবি) ছাত্রলীগের দুগ্রুপের সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছে। সংঘর্ষকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরসহ ৫ জন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১০ জন। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত শাবি ছাত্রলীগের অঞ্জন-উত্তম ও পার্থ-সবুজ গ্রুপের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ গিয়ে রাবার বুলেট ও শর্টগানের গুলি ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।  নিহত সুমন চন্দ্র দাস সিলেট ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির বিবিএ শেষ বর্ষের ছাত্র। সে দিরাই উপজেলার সামারচর গ্রামের পুজা বাড়ির হিরা ধনের ছেলে। সংঘর্ষ চলাকালে সে অঞ্জন-উত্তম গ্রুপের হয়ে শাবিতে গিয়েছিল। গুলিবিদ্ধ হয়ে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান তিনি।  গুলিবিদ্ধদের মধ্যে রয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর হিমাদ্রি শেখর রায়, শাবি ছাত্রলীগের সহ সভাপতি ও অর্থনীতি বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র অঞ্জন রায় এবং সমাজবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষ প্রথম সেমিস্টারের ছাত্র ও ছাত্রলীগকর্মী খলিলুর রহমান। বাকি গুলিবিদ্ধ দুইজনের নাম জানা যায়নি।  এছাড়া আহত হয়ে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ছাত্রলীগকর্মী হুসাইন মোহাম্মদ সাগর ও আবদুস সালাম মঞ্জু। নজরুল, সেলিম, আহাদ ও মিজান প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।  বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়- শাবি ক্যাম্পাসে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহ সভাপতি অঞ্জন রায় ও সাবেক কেন্দ্রীয় সদস্য উত্তম কুমার দাস গ্রুপের সাথে শাবি ছাত্রলীগ সভাপতি সঞ্জিবন চক্রবর্তী পার্থ ও যুগ্ম সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম সবুজ গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা চলে আসছিল।  বৃহস্পতিবার সকাল থেকে উভয় গ্রুপের নেতাকর্মীরা ক্যাম্পাসে জড়ো হতে থাকলে উত্তেজনা দেখা দেয়। সকাল ১০টায় উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে উভয় গ্রুপ আগ্নেয়াস্ত্র, ধারালো অস্ত্র, লাঠিসোটার ব্যবহার ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে ছাত্রলীগের ৫ কর্মী গুলিবিদ্ধ হন। এর মধ্যে সুমন আহমদ নামের এক বহিরাগতকর্মী গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান।  সংঘর্ষকালে উভয় গ্রুপের পক্ষ নিয়ে বহিরাগত ক্যাডাররা অংশ নেয়। সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে পুলিশ অন্তত ৩০ রাউন্ড রাবার বুলেট ও শর্টগানের গুলি ছুঁড়ে। পুলিশের ছোঁড়া রাবার বুলেটে প্রক্টর হিমাদ্রি শেখর রায় আহত হন বলে জানা গেছে।

ক্যাম্পাসে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (শাবিপ্রবি) ছাত্রলীগের দুগ্রুপের সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছে। সংঘর্ষকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরসহ ৫ জন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১০ জন। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত শাবি ছাত্রলীগের অঞ্জন-উত্তম ও পার্থ-সবুজ গ্রুপের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ গিয়ে রাবার বুলেট ও শর্টগানের গুলি ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

নিহত সুমন চন্দ্র দাস সিলেট ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির বিবিএ শেষ বর্ষের ছাত্র। সে দিরাই উপজেলার সামারচর গ্রামের পুজা বাড়ির হিরা ধনের ছেলে। সংঘর্ষ চলাকালে সে অঞ্জন-উত্তম গ্রুপের হয়ে শাবিতে গিয়েছিল। গুলিবিদ্ধ হয়ে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান তিনি।

গুলিবিদ্ধদের মধ্যে রয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর হিমাদ্রি শেখর রায়, শাবি ছাত্রলীগের সহ সভাপতি ও অর্থনীতি বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র অঞ্জন রায় এবং সমাজবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষ প্রথম সেমিস্টারের ছাত্র ও ছাত্রলীগকর্মী খলিলুর রহমান। বাকি গুলিবিদ্ধ দুইজনের নাম জানা যায়নি।

এছাড়া আহত হয়ে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ছাত্রলীগকর্মী হুসাইন মোহাম্মদ সাগর ও আবদুস সালাম মঞ্জু। নজরুল, সেলিম, আহাদ ও মিজান প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়- শাবি ক্যাম্পাসে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহ সভাপতি অঞ্জন রায় ও সাবেক কেন্দ্রীয় সদস্য উত্তম কুমার দাস গ্রুপের সাথে শাবি ছাত্রলীগ সভাপতি সঞ্জিবন চক্রবর্তী পার্থ ও যুগ্ম সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম সবুজ গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা চলে আসছিল।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে উভয় গ্রুপের নেতাকর্মীরা ক্যাম্পাসে জড়ো হতে থাকলে উত্তেজনা দেখা দেয়। সকাল ১০টায় উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে উভয় গ্রুপ আগ্নেয়াস্ত্র, ধারালো অস্ত্র, লাঠিসোটার ব্যবহার ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে ছাত্রলীগের ৫ কর্মী গুলিবিদ্ধ হন। এর মধ্যে সুমন আহমদ নামের এক বহিরাগতকর্মী গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান।

সংঘর্ষকালে উভয় গ্রুপের পক্ষ নিয়ে বহিরাগত ক্যাডাররা অংশ নেয়। সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে পুলিশ অন্তত ৩০ রাউন্ড রাবার বুলেট ও শর্টগানের গুলি ছুঁড়ে। পুলিশের ছোঁড়া রাবার বুলেটে প্রক্টর হিমাদ্রি শেখর রায় আহত হন বলে জানা গেছে। – See more at: http://www.sylhetview24.com/news/details/Sylhet/17551#sthash.N9vvVdXn.dpuf

You may also like

Leave a Comment


cheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseys